মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
বৃহস্পতিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৪, ১০ আশ্বিন ১৪২১
নির্মাণ ও ঐতিহ্যের ১৯ বছর শিল্পকলায় শব্দ নাট্যোৎসব শুরু আজ
স্টাফ রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির সঙ্গীত ও নৃত্যকলা মিলনায়তনে আজ বৃহস্পতিবার থেকে শব্দ নাট্যচর্চা কেন্দ্রের ১৯ বছর পূর্তি উপলক্ষে শুরু হচ্ছে তিন দিনব্যাপী শব্দ নাট্যোৎসব। উৎসব চলবে আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। এবারে এ উৎসবের স্লোগান নির্ধারণ করা হয়েছে ‘নির্মাণ ও ঐতিহ্যের ১৯ বছর’। আজ সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুছ। বিশেষ অতিথি থাকবেন বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের সভাপতিম-লীর সদস্য নাট্যজন ঝুনা চৌধুরী, সভাপতিম-লীর সদস্য অনিরুদ্ধ ধর শান্তুনু, সেক্রেটারি জেনারেল আকতারুজ্জামান, সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল চন্দন রেজা এবং সম্পাদক (অর্থ) মীর জাহিদ হাসান প্রমুখ। নাট্যোৎসব উদ্বোধন করবেন প্রবীণ ও নবীন বিভিন্ন নাট্যদলের দলপ্রধান ১৯ নাট্যজন। এরা হলেন গোলাম সরওয়ার, আরহাম আলো, তাপস সরকার, সেলিম সামসুল হুদা, গাজী নুরুল হুদা বাবু, আবদুল হালিম আজিজ, ম আ সালাম, ম আবু হারুন টিটো, সগির মোস্তফা, আলী মাহমুদ, অলোক বসু, মীর বরকত, আজিজুল পারভেজ, খন্দকার সানাউল হক, শওকত, মির্জা আব্দুর রাজ্জাক, মোঃ আক্কাস, ডি. এম. হাবিব, শহিদুল হক খান শ্যানন। উৎসবে মোট পাঁচটি নাটক মঞ্চস্থ হবে। উদ্বোধনী সন্ধ্যায় আজ মঞ্চস্থ হবে সমীর দাস গুপ্তের রচনা এবং অনন্ত হিরার নির্দেশনায় নাটক ‘তৃতীয় একজন’।
উৎসবের দ্বিতীয় দিন আগামীকাল শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টায় মঞ্চস্থ হবে নাটক ‘ঠিকানা’। এটি রচনা করেছেন সন্তোষ চক্রবর্তী, নিদেশনা দিয়েছেন খোরশেদুল আলম। একই দিন সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় মঞ্চস্থ হবে নাটক ‘রাইফেল’। এটি রচনা করেছেন ব্রেটোল্ড ব্রেখট, রূপান্তর অমিত চন্দন, নির্দেশনা দিয়েছেন খোরশেদুল ইসলাম। উৎসবের তৃতীয় এবং শেষ দিন সন্ধ্যা ৬টায় মঞ্চস্থ হবে নাটক ‘দর্পণ সাক্ষী’। এটি রচনা করেছেন চন্দন সেন, নির্দেশনা দিয়েছে খোরশেদুল আলম। সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় মঞ্চস্থ হবে নাটক ‘ইনফরমার’। এটি রচনা করেছেন শান্তনু বিশ্বাস এবং নির্দেশনা দিয়েছেন খোরশেদুল আলম।
প্রসঙ্গত, শব্দ নাট্যচর্চা কেন্দ্র ১৯৯৫ সাল থেকে বন্দর নগরী চট্টগ্রামে যাত্রা শুরু করে। পরবর্তীতে ২০০৭ সালে ঢাকার দল হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে। শব্দ নাট্যচর্চা কেন্দ্র বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনভুক্ত একটি সক্রিয় নাট্য দল।
আসছে ফয়সালের এ্যালবাম ‘ভালবাসার শেষ খেয়াল’
স্টাফ রিপোর্টার ॥ শীঘ্রই বাজারে আসছে শিল্পী ও সুরকার ফাহিম ফয়সালের একক এ্যালবাম ‘ভালবাসার শেষ খেয়াল’। ঈদ-উল আযহা ও সারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষে দেশের সবকটি এফএম রেডিও এবং অনলাইন মিউজিক ওয়েবসাইটে ‘ভালবাসার শেষ খেয়াল’ এ্যালবামের গান প্রকাশ হয়েছে। বর্তমানে এফএম রেডিওগুলোতে প্রচার হচ্ছে ‘জাদুর ছায়া’ শিরোনামের আমার একটি সিঙ্গেল ট্র্যাক। এছাড়াও ইতোমধ্যে গানটি কটি স্যাটেলাইট টিভি চ্যানেলে প্রচার হয়েছে। ফয়সালের সুরে গানটির সঙ্গীতায়োজন করেছেন রাফি। গানের কথা লিখেছেন ইফতেখার সুজা। এ প্রসঙ্গে ফয়সাল বলেন, আমার ‘ভালবাসার শেষ খেয়াল’ এ্যালবামটি আনুষ্ঠানিকভাবে মুক্তি দেয়ার আগে একটি একটি করে গান এফ এম রেডিও এবং অনলাইন মিউজিক ওয়েবসাইটগুলোতে মুক্তি দিচ্ছি। এতে ভাল সাড়া পাচ্ছি।
তিনি বলেন, শ্রোতারাই গানের প্রাণ। আমার দৃঢ় বিশ্বাস সব শ্রেণীর শ্রোতারাই আমার নতুন এ্যালবামের গানগুলোকে গ্রহণ করবেন। এ্যালবামের গানগুলো নির্মাণ করতে সময় নিয়েছি। আমার সর্বোচ্চ চেষ্টা দিয়ে সুর ও সঙ্গীতায়োজন করেছি। এ্যালবামের প্রতিটি গানই বেশ যত্ন নিয়ে করেছি। গীতিকবি ইফতেখার সুজা ভাল লিখেছেন। আর রাফিও বেশ যত্ন করে সময় দিয়ে গানের সঙ্গীতায়োজন করেছেন। ফয়সাল আরও জানান, ‘ভালবাসার শেষ খেয়াল’ এ্যালবামে গান থাকছে ৮টি। তাই এ্যালবামের প্রমো ও ‘জাদুর ছায়া’ গানটি অনলাইন মিউজিক ওয়েবসাইটগুলোতে এখন থেকে পাওয়া যাচ্ছে।
ঈদের বিশেষ টেলিফিল্ম ‘হিয়ার মাঝে লুকিয়ে ছিল’
স্টাফ রিপোর্টার ॥ চ্যানেল নাইনে ঈদের দিন দুপুর ৩টায় প্রচার হবে বিশেষ টেলিফিল্ম ‘হিয়ার মাঝে লুকিয়ে ছিল’। টেলিফিল্মটি রচনা করেছেন জাকির হোসেন উজ্জ্বল। পরিচালনা করেছেন শামীম জামান। টেলিফিল্মের বিভিন্ন দৃশ্যে অভিনয় করেছেন জাহিদ হাসান, শামীম জামান, রাজী আলী, সঞ্জীব আহমেদ, সাইকা আহমেদ প্রমুখ। টেলিফিল্মের কাহিনীতে দেখা যাবে ছাতিয়ানতলীর মেয়ে নবনী দশ বছর পর যখন নিজ গ্রামে ফিরে আসে অনেকেই বিদেশী মেম মনে করে ওকে। তার চাচাত ভাই কিসুল স্বভাবে বাচাল এবং আলগা টাউট প্রকৃতির। অতিরিক্ত স্মার্ট সাজতে কথায় কথায় ভুল ইংরেজীতে কথা বলে নবনীর সঙ্গে। নবনীর আরেক চাচাত ভাই পুলক। শিক্ষিত এবং সুদর্শন যুবক। শহরে ভাল চাকরি পাওয়া সত্ত্বে¡ও সে গ্রামের উন্নয়নের কথা চিন্তা করে সেখানে যায় না।
নবনী পুলকের স্বপ্নের কথা শুনে হাসে। তাকে বিদেশে নিয়ে যেতে চায়। কিন্তু পুলক নিজে স্বাবলম্বী হওয়ার চেয়ে তার গ্রামের মানুষগুলোকে স্বাবলম্বী হওয়ার স্বপ্ন দেখে। অন্যদিকে কিসুল স্বপ্ন দেখে নবনীর সঙ্গে আমেরিকা যাওয়ার। এই নিয়ে সে বিভিন্ন হাস্যকর কা- করে। এমনকি চাচাত ভাই পুলককে বুঝিয়ে দেয় নবনীর সঙ্গে তার অন্যরকম সম্পর্ক আছে। পুলক নবনীকে পছন্দ করে। বিদেশে যাওয়ার আগেই দুজনের মধ্যে এক ধরনের ভাললাগার সম্পর্ক থাকে।
যদিও দুইজনের কেউ সেটা প্রকাশ করে না। কিসুল ইংরেজী শেখার জন্য বই কিনে সারারাত ভাষা শিখতে ব্যস্ত হয়ে যায়। নবনীর চলে যাওয়ার দিনও ঘনিয়ে আসে। এভাবেই কাহিনী এগোয়।
নাট্যযুদ্ধের স্টুডিও রাউন্ডের চার বিচারক
স্টাফ রিপোর্টার ॥ এটিএন বাংলা এবং ব্যাকড্রপ লিমিটেডের যৌথ আয়োজনে টেলিভিশন নাটক বিষয়ক দেশের প্রথম রিয়েলিটি শো ‘রয়েল টাইগার নাট্যযুদ্ধ’র বিচারক হিসেবে যুক্ত হলেন দেশের চার নাট্যব্যক্তিত্ব। এই গুণী ব্যক্তিত্ব হলেন অভিনেতা মাসুদ আলী খান, অভিনেত্রী দিলারা জামান, পরিচালক সাইদুল আনাম টুটুল ও নাট্যকার মাসুম রেজা। এই রিয়েলিটি শোর জেলা পর্যায়ের নাটক নির্মাণ শেষ হয়েছে। বাছাইকৃত চিত্রনাট্য নিয়ে দেশের ৬টি জোনে চলে জেলা পর্যায়ের নাটক নির্মাণ প্রক্রিয়া। নাটকগুলো নির্মাণ ও এতে অভিনয় করেন জেলাভিত্তিক প্রতিযোগীরা। প্রাথমিক পর্যায়ে মোট ৬৫টি জেলা ভিত্তিক নাটক নির্মাণ করা হয়েছে। এই ৬৫টি নাটক নিয়ে এবারে শুরু হয়েছে রিয়েলিটি শোর স্টুডিও রাউন্ডের অনুষ্ঠান ধারণ।
বুধবার থেকে সাভারের ফাহিম স্টুডিওতে শুরু হয়েছে নাট্যযুদ্ধের মূল পর্বের অনুষ্ঠান ধারণ। স্টুডিও রাউন্ডের ওই চার বিচারক ছাড়াও প্রতিযোগিতায় একজন হিডেন বিচারক থাকবেন। বিচারকদের রায়ে এই নাটকগুলোর উত্তীর্ণ অভিনয় শিল্পী, নাট্যকার ও পরিচালকরা পরবর্তীতে নাটক নির্মাণের সুযোগ পাবেন। এভাবেই পর্যায়ক্রমে বাছাই করা হবে সেরা নাটক-শিল্পী-নির্মাতা-কুশলীদের। নাট্যযুদ্ধের প্রধান সমন্বয়কারী হিসেবে রয়েছেন এটিএন বাংলার উপদেষ্টা (অনুষ্ঠান) নওয়াজীশ আলী খান। প্রকল্প প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন তুহিন বড়ুয়া। অনুষ্ঠানটি যৌথভাবে পরিচালনা করেছেন মুকাদ্দেম বাবু ও জিল্লুর রহমান। প্রসঙ্গত, আগামী অক্টোবর মাসের শেষ সপ্তাহ থেকে এটিএন বাংলায় প্রচার শুরু হবে ‘রয়েল টাইগার নাট্যযুদ্ধ’।
নির্মিত হলো নাটক ‘অতিথি’
স্টাফ রিপোর্টার ॥ আগামী ঈদ-উল আযহায় প্রচারের জন্য সম্প্রতি নির্মিত হয়েছে বিশেষ খ- নাটক ‘অতিথি’। নাটকটির চিত্রনাট্য তৈরি করেছেন সাজিন আহমেদ বাবু। কাহিনী, চিত্রগ্রহণ ও পরিচালনা করেছেন এম আর মিজান। নাটকটির প্রধান দুটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন চলচ্চিত্র অভিনেত্রী তমা মির্জা এবং জনপ্রিয় অভিনেতা মোশাররফ করিম। এছাড়া আরও অভিনয় করেছেন আরজুমান্দ আরা বকুল, কামাল হোসেন বাবর, অলিউল হক রুমি, নজমুল হুদা বাচ্চু, কাজী রফিকুল ইসলাম, নয়ন, আলামিন প্রমুখ। পি আর প্রডাকশন নির্মিত সুজন মাহমুদ প্রযোজিত নাটকটি এবার ঈদের বিশেষ অনুষ্ঠানমালায় গাজী টিভিতে প্রচার হবে। নাটকের কাহিনীতে দেখা যাবে চিত্রনায়িকা রুমিয়া বিয়ের আসর থেকে পালিয়েছে। কিছু মাস্তান তার পিছু নিয়েছে। রুমিয়া একটা বাড়িতে লুকিয়ে পড়ে। মাস্তানরা তাকে আর খুঁজে পায় না। মাস্তানরা পুরো মহল্লার, প্রতিটি বাড়ি তন্নতন্ন করে খুঁজতে থাকে। ওদিকে রুমিয়া যে ফ্লাটে লুকায় সেটা একটা ব্যাচেলরদের ফ্ল্যাট। যে রুমে লুকায় সেটা সোলায়ামানের রুম। সোলায়মান ফিল্মের নায়িকাকে দেখে অবাক হয়ে যায়। ফিল্মের নায়িকা তার ঘরে! সে স্বপ্ন দেখছে নাতো। নায়িকা তার বিপদের কথা তাকে খুলে বলে, তার বাবা-মা, ভাই-বোন কেউ নেই। ছোটকাল থেকে সে মামা-মামির কাছে মানুষ। সেই মামা-মামি এখন টাকার লোভে এক বয়স্ক লোকের সঙ্গে তাকে বিয়ে দিতে চাচ্ছেন। এজন্য সে বিয়ের আসর থেকে পালিয়েছে। এখন সে সোলায়মানের কাছে সাহায্য চায়। সহজ-সরল সোলায়মান নায়িকাকে বাসার অন্যান্য সবার চোখের আড়াল থেকে লুকিয়ে রাখে, লুকিয়ে রাখে মাস্তানদের দৃষ্টি থেকে। এবং এই সবার চোখের আড়াল থেকে লুকিয়ে রাখতে একেক সময় একেক কৌশল অবলম্বন করে। যা নাটকে মজার মজার সব হাস্যরস তৈরি করবে। এভাবে হাস্যরস ও উত্তেজনাকর অবস্থার মধ্যে দিয়ে এগিয়ে যায় নাটকের গল্প।
মিউজিক স্টেশনে আজ গাইবেন মৌটুসী ইসলাম
স্টাফ রিপোর্টার ॥ শ্রোতাপ্রিয় শিল্পী মৌটুসী। এ শিল্পী এবার জীবন্ত কিংবদন্তি শিল্পী লতা মঙ্গেশকর জন্মদিন উপলক্ষে আজ আরটিভির নিয়মিত লাইভ স্টুডিও কনর্সাট ‘ওয়ালটন মিউজিক স্টেশন’ অনুষ্ঠানে গান করবেন তিনি। ওয়ালটন মিউজিক স্টেশন অনুষ্ঠানে শিল্পী মৌটুসী শ্রোতাদের পছন্দসহ লতার বাংলা জনপ্রিয় গান করবেন। এছাড়া অনুষ্ঠানে গানের ফাঁকে ফাঁকে কথা বলবেন শ্রোতাদের সঙ্গে। এ অনুষ্ঠানে গানের ফাঁকে ফাঁকে তিনি দর্শকদের সঙ্গে ফোনে সরাসরি আড্ডা দেবেন। শোনাবেন দর্শকদের পছন্দের গান। কথা বলবেন সঙ্গীতের নানা বিষয় নিয়ে। ওয়ালটন স্টুডিও কনসার্ট অনুষ্ঠানটি আজ বৃহস্পতিবার রাত ১১টা ২০ মিনিটে আরটিভিতে। প্রচার হবে। অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করেছেন ইশিকা ও প্রযোজনা করেছেন সফিক পাহাড়ী।

জাফর ইকবালের গান গাইলেন পার্থ বড়ুয়া
স্টাফ রিপোর্টার ॥ দেশীয় চলচ্চিত্রের অমর নায়ক অভিনেতা জাফর ইকবাল। অভিনয়ের পাশাপাশি জাফর ইকবাল গানও করতেন। ১৯৬৬ সালে একটি ব্যান্ড গড়ে তুলেছিলেন তিনি। আজ ২৫ সেপ্টেম্বর জাফর ইকবালের ৬৫তম জন্মদিন। ১৯৫০ সালের এইদিনে জন্মেছিলেন তিনি। জাফর ইকবাল অভিনীত প্রথম চলচ্চিত্র ‘আপনপর’। এরপর একে একে প্রায় দেড়শ ছবিতে কাজ করেছেন তিনি। চলচ্চিত্রে তার গাওয়া প্রথম গান ছিলো ‘পিচঢালা পথ’। এরপর ‘হয় যদি বদনাম হোক আরও’, ‘সুখে থেকো ও আমার নন্দিনী’ গানটিও শ্রোতাপ্রিয় হয়েছিলো। জাফর ইকবালের গাওয়া আরেকটি বিখ্যাত গান ‘যেভাবেই বাঁচি বেঁচে তো আছি, জীবন আর মরণের মাঝামাঝি’। সম্প্রতি এ গানটি নতুনভাবে গেয়েছেন পার্থ বড়ুয়া। সোলস ব্যান্ডের এই কা ারীর কণ্ঠে গানটি একটি টিভি নাটকে ব্যবহার করা হবে বলে জানা গেছে। নাটকটি পরিচালনা করছেন এজাজ মুন্না। এতে পার্থ বড়ুয়া অভিনয়ও করছেন। আসছে কোরবানির ঈদে এনটিভিতে প্রচার
হবে নাটকটি।
উদীচী ঢাবি সংসদের জয়নুল আবেদিন স্মরণানুষ্ঠান
স্টাফ রিপোর্টার ॥ শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিনের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে উদীচী কেন্দ্রীয় সংসদের অনুষ্ঠানমালার অংশ হিসেবে মঙ্গলবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসির গেমস রুমে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। বাংলাদেশ উদীচী শিল্পীগোষ্ঠীর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সংসদ আয়োজিত অনুষ্ঠানের শুরুতে ছিল আলোচনা সভা। এতে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের সাবেক ডীন এবং উদীচী ঢাবি সংসদের সভাপতি অধ্যাপক মতলুব আলী। আলোচনা করেন ঢাবির চারুকলা অনুষদের সহকারী অধ্যাপক হারুন-উর-রশিদ, বাংলা বিভাগের অধ্যক্ষ অধ্যাপক সৈয়দ আজিজুল হক, বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন কেন্দ্রীয় সংসদের সভাপতি হাসান তারেক, উদীচী কেন্দ্রীয় সংসদের চলচ্চিত্র ও চারুকলা বিভাগের সম্পাদক প্রদীপ ঘোষ। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন উদীচী ঢাবি সংসদের নেতা ঊযমা তাজ্বরিয়ান স্বপ্নীল। আলোচনা সভার পর প্রদর্শিত হয় শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিনকে নিয়ে উদীচীর কেন্দ্রীয় চলচ্চিত্র ও চারুকলা বিভাগের উদ্যোগে নির্মিত প্রামাণ্যচিত্র ‘ম্যাডোনা-৪৩’। ৩০ মিনিট ব্যাপ্তির প্রামাণ্যচিত্রটিতে জয়নুলের চিত্রকর্মকে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। উদীচীর কেন্দ্রীয় চলচ্চিত্র ও চারুকলাবিষয়ক সম্পাদক প্রদীপ ঘোষের গ্রন্থনা ও পরিকল্পনায় এ প্রামাণ্যচিত্রে চিত্রকলায় বিশেষ পর্যায়ের চিত্রশৈলী, ‘ম্যাডোনা’ নিয়ে আলোচনা করা হয়।

ভক্তদের সঙ্গে টেলর সুইফট
সংস্কৃতি ডেস্ক ॥ টেলর সুইফটের নতুন এ্যালবাম ‘১৯৮৯’ খুব শীঘ্রই প্রকাশ হতে যাচ্ছে। কিন্তু এ্যালবাম প্রকাশের আগেই ভক্তদের তা শুনিয়েছেন এই শিল্পী। তবে সব ভক্তকে নয়। তাঁর তালিকায় কিছু বিশ্বস্ত ভক্তের নাম আছে। গান শোনাতে তাঁদেরকেই আমন্ত্রণ জানান তাঁর বাড়িতে। সম্প্রতি টেলর ৩৫ বিশ্বস্ত ভক্তকে তাঁর লস এ্যাঞ্জেলসের বাড়িতে আমন্ত্রন জানান। সেদিনের আয়োজনে তোলা কিছু ছবি অনেকেই তাঁদের টুইটারে পোস্ট করেছেন। টেলরের ভক্তদের পোস্ট অনুযায়ী তাঁরা সবাই প্রথমে গির্জায় একত্রিত হন। এরপর প্রিয় গায়িকার বাড়িতে প্রবেশের আগে তাঁদের একে একে নিরাপত্তাকর্মীরা চেক করেন। বাড়িতে প্রবেশের পর গায়িকা সবাইকে তাঁর মা-বাবার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেন। পিজ্জা ও ফ্রেশ কুকি দিয়ে তাঁদের আপ্যায়ন করান। এরপর গান শোনানোর ফাঁকে ভক্তদের বলেন তাঁদের স্মরণীয় মুহূর্তগুলো তাঁর সঙ্গে ভাগাভাগি করতে।