মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
সোমবার, ৫ এপ্রিল ২০১০, ২২ চৈত্র ১৪১৬
দশ নারীকে অনন্যার সম্মাননা
স্টাফ রিপোর্টার ॥ বছরের আলোচিত নারীদের বিশেষভাবে সম্মান এবং তাঁদের সকলের সামনে তুলে ধরার লৰ্যে রবিবার জাতীয় জাদুঘরের সুফিয়া কামাল মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হলো 'অনন্যা শীর্ষ দশ ২০০৯' সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডা. দীপু মনি। বিশেষ অতিথি ছিলেন বিশিষ্ট অর্ধনীতিবিদ আবুল বারাকাত। সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক ডেপুটি গবর্নর খন্দকার ইব্রাহীম খালেদ। এবার অনন্যা শীর্ষ দশ সম্মাননা পেয়েছেন ভাষা আন্দোলনে রওশন আরা বাচ্চু, শিৰায় শীলা মোমেন, উচ্চাঙ্গ যন্ত্রসঙ্গীতে রীনাত ফওজিয়া, কারম্নশিল্পে মৌলুদা বেগম, প্রমাণ্যচিত্রে শবনত ফেরদৌসী, অর্থনীতিতে ড. ফহিমিদা খাতুন, সমাজ কল্যানে মনিরা রহমান, ব্যাংকিংয়ে তাহনিয়াত আহমেদ করিম, প্রশাসনে হোসনে আরা বেগম ও বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী শিশুকল্যানে সালমা হক।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে ডা. দীপু মনি বলেন, নারীকে পিছিয়ে রেখে একটি সমাজ এগিয়ে যেতে পারেনা। পুরম্নষের পাশাপাশি নারীরাও সমানতালে এগিয়ে না গেলে একটি সমাজ মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে পারবে না। সমাজের অসঙ্গতি সৃষ্টির পেছনে অনেকগুলো কারণের একটি হলো নারীর অবমূল্যায়ণ। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে আবুল বারাকাত বলেন, সমাজে নারীদের যতটুকু মূল্যায়ন হওয়া প্রয়োজন ততটুকু হচ্ছে না। সেৰেত্রে অনন্যার এ উদ্যোগ সমাজকে এগিয়ে নিতে বড় ভূমিকা রাখবে।
এর আগে অনুষ্ঠানে অতিথিদের ফুল দিয়ে বরণ করে নেওয়া হয়। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন অনন্যার নির্বাহী সম্পাদক দিল মনোয়ারা মনু। পদকপ্রাপ্তদের পরিচিতি পর্বের পর প্রধান অতিথি তাদের হাতে পদক তুলে দেন। পদকপ্রাপ্তরা তাঁদের অনুভূতি ব্যক্ত করতে গিয়ে আবেগ প্রবন হয়ে পরেন। বলেন, এ সম্মানের মাধ্যমে পুরো নারী জাতিকেই সম্মানিত করা হলো। এরপর একক সঙ্গীত পরিবেশন করেন কণ্ঠশিল্পী ইফফাত আরা নার্গিস। তার সুললিত কণ্ঠ মিলনায়তন ভর্তি দর্শকে মন্ত্রমুগ্ধ করে রাখে।