মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
বুধবার, ২৪ জুলাই ২০১৩, ৯ শ্রাবণ ১৪২০
স্বপনসহ বিএনপি নেতাদের জামিন
নির্বাচনোত্তর সহিংসতা
স্টাফ রিপোর্টার ॥ ২০০১ সালে নির্বাচনপরবর্তী সহিংসতার অভিযোগে দায়ের করা মামলায় দুই মাসের আগাম জামিন পেয়েছেন বরিশাল-১ আসনের সাবেক এমপি বিএনপি নেতা এম. জহিরউদ্দিন স্বপন। মঙ্গলবার আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করলে বিচারপতি সালমা মাসুদ চৌধুরী ও বিচারপতি মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেনের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ তাঁর জামিন মঞ্জুর করেন।
আদালতে আবেদনের পক্ষে ছিলেন ব্যারিস্টার রফিক-উল হক ও ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল।
জহিরউদ্দিন স্বপন জানান, ২০০১ সালের জাতীয় নির্বাচনপরবর্তী সহিংসতার ঘটনায় মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধের অভিযোগে গত রবিবার রাতে গৌরনদী উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি দেলোয়ার হোসেন বাদী হয়ে গৌরনদী থানায় এই মামলা দায়ের করেন। এ মামলায় স্বপনসহ বিএনপির অজ্ঞাতনামা শতাধিক নেতাকর্মীকে আসামি করা হয়। নিজস্ব সংবাদদাতা, গৌলনদী থেকে জানান, মামলা দায়েরের মাত্র একদিন পর মঙ্গলবার দুপুরে বরিশালের বিএনপি দলীয় সাবেক এমপি জহির উদ্দিন স্বপন, ইউপি চেয়ারম্যান মঞ্জুর হোসেন মিলন এবং অপর আরেকটি মামলার তিন দিন পর বিএনপির নয়জন নেতা-কর্মীরা আগাম জামিন নিয়েছেন। জানা গেছে, ২০০১ সালের নির্বাচনোত্তর আওয়ামী লীগ সমর্থকদের ওপর হামলা, ভাংচুর, লুটপাট ও বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় বরিশালের গৌরনদী ও আগৈলঝাড়া থানায় পৃথক দুটি মামলা দায়ের করা হয়েছিল।
সূত্রমতে, গত ২১ জুলাই গভীর রাতে উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি মোঃ দেলোয়ার হোসেন বাদী হয়ে বরিশাল-১ আসনের বিএনপি দলীয় সাবেক সংসদ সদস্য, বিএনপির সাবেক কেন্দ্রীয় তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক এম. জহির উদ্দিন স্বপন এবং সরিকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মঞ্জুর হোসেন মিলনসহ বিএনপির আরও অজ্ঞাতনামা এক শ’ জন নেতা-কর্মীকে আসামি করে গৌরনদী থানায় মামলা দায়ের করেন।
অপরদিকে মামলা দায়েরের পর সোমবার শেষ কার্যাদেশে মামলার তদন্ত প্রতিবেদন আগামী এক মাসের মধ্যে দাখিল করার জন্য গৌরনদী থানার ওসিকে নির্দেশ দিয়েছেন বরিশাল সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান।