মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
রবিবার, ৯ অক্টোবর ২০১১, ২৪ আশ্বিন ১৪১৮
ভারতে দুই দিনের শিশুকে জীবন্ত কবর!
জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ হত্যার উদ্দেশ্যে জীবন্ত কবর দেয়া হয়েছিল দুই দিনের এক কন্যা শিশুকে। কিন্তু এক কৃষকের বদৌলতে বেঁচে গেছে শিশুটি। ভারতের মধ্যপ্রদেশের বোধনা গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে। খবর এনডিটিভি অনলাইনের। গত বৃহস্পতিবার বিকেলে বোধনা গ্রামের ওই কৃষক ৰেতে কাজ করছিলেন। হঠাৎ এক শিশুর কান্না তার কানে ভেসে আসে। কান্নার উৎসস্থল খুঁজে তিনি দেখতে পান ছোট্ট একটি শিশুর মাথা মাটি থেকে বের হয়ে আছে। তিনি বুঝতে পারেন শিশুটিকে জীবন্ত কবর দেয়া হয়েছিল। কিন্তু শিশুটি কোনভাবে তার মাথা মাটি ফুঁড়ে বের করতে পেরেছে। তাৎক্ষণাৎ তিনি শিশুটিকে উদ্ধার করে নিকটবর্তী একটি হাসপাতালে নিয়ে যান। চিকিৎসকরা ধারণা করছেন যখন শিশুটিকে উদ্ধার করা হয় তখন তার বয়স ছিল ৪৮ ঘণ্টা।
খবর পেয়ে প্রদেশের শিৰামন্ত্রী আর্চনা চিতনিস হাসপাতালে শিশুটিকে দেখতে যান। তিনি শিশুটিকে ঠিকমতো পরিচর্যা করার জন্য হাসপাতাল কতর্ৃপৰকে নির্দেশ দেন। হাসপাতালের পরিচর্যায় শিশুটি দ্রম্নত সুস্থ হয়ে উঠছে বলে জানিয়েছে সংবাদ মাধ্যম।
এদিকে স্থানীয় পুলিশ শিশুর বাবা মাকে খুঁজে বের করার চেষ্টা করছে। তবে বাবা-মাকে খুঁজে পাওয়া গেলেও শিশুটিকে আর তাদের কাছে হস্তান্তর করা হবে না বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।
কি কারণে কন্যা শিশুটিকে কবর দিয়ে হত্যা করার চেষ্টা হয়েছে। তা এখনও স্পষ্ট নয়। তবে মধ্যপ্রদেশে কন্যা শিশু হত্যার ঘটনা অহরহই ঘটছে। ২০০৯ সালের এক পরিসংখ্যানে দেখা যায় মধ্যপ্রদেশে অবৈধ গর্ভপাত এবং কন্যাশিশু হত্যার ঘটনা ভারতের মধ্যে সর্বোচ্চ।