মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
শনিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৩, ৩০ অগ্রহায়ন ১৪২০
ইংলাকের দফতরের পানি ও বিদ্যুত লাইন কেটে দিল বিরোধীরা
থাইল্যান্ডের সরকারবিরোধী বিক্ষোভকারীরা প্রধানমন্ত্রী ইংলাক সিনাওয়াত্রার অফিসের বিদ্যুত ও পানির লাইন কেটে দিয়েছে। প্রধানমন্ত্রী ইংলাকের পদত্যাগ দাবি এবং একটি অনির্বাচিত পরিষদের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তরের দাবিতে গত মাস থেকে বিক্ষোভ চালিয়ে আসছে বিক্ষোভকারীরা। খবর সিবিসি ও এএফপি অনলাইনের।
বৃহস্পতিবার থাই ব্যবসায়ীদের কাছে আন্দোলনের যথার্থতা ব্যাখ্যা করার পর বিক্ষোভকারীরা ব্যাঙ্ককে প্রধানমন্ত্রী দফতরের বিদ্যুত সংযোগ ও পানির লাইন কেটে দেয়। তবে এ সময় প্রধানমন্ত্রী ইংলাকসহ কোন কর্মকর্তা দফতরে ছিলেন না। ব্যাঙ্কক মেট্রোপলিটন পুলিশ ব্যুরোর কমান্ডার লে. জেনারেল কামরুনুত টপক্রাজান এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
এদিকে ইংলাককে উৎখাতে বিক্ষোভকারীরা সামরিক বাহিনীর সহায়তাও চেয়েছে। তবে সামরিক বাহিনী তাতে সাড়া দেয়নি।
বিক্ষোভের মুখে ইংলাক পার্লামেন্ট ভেঙ্গে দিয়ে আগামী ২ ফেব্রুয়ারিতে আগাম নির্বাচন অনুষ্ঠানের ঘোষণা দিলেও বিক্ষোভ থামেনি।
বিক্ষোভকারীরা দেশ পরিচালনার জন্য এ মুহূর্তেই একটি অনির্বাচিত পরিষদ গঠনের দাবি জানাচ্ছে। নির্বাচন এ ‘গণপরিষদ’-এর অধীনে করতে চায় তারা।
গত মাস থেকে থাইল্যান্ডে চলছে সরকারবিরোধী বিক্ষোভ। ইংলাক তাঁর ভাই ক্ষমতাচ্যুত সাবেক প্রধানমন্ত্রী থাকসিন সিনাওয়াত্রার কথায় দেশ চালাচ্ছেন অভিযোগে বিরোধী দলের নেতৃত্বে শুরু হয় এ সরকারবিরোধী গণবিক্ষোভ।