মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
রবিবার, ২৩ জুন ২০১৩, ৯ আষাঢ় ১৪২০
দুর্নীতি দমন করব
০ ব্রাজিলে পরিবহন ভাড়া হ্রাস, শিক্ষা ও স্বাস্থ্য খাতে আরও বিনিয়োগের প্রতিশ্রুতি প্রেসিডেন্ট রুসেফের
ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট দিলমা রুসেফ তাঁর দেশে দুর্নীতি রোধ করার জন্য আরও পদক্ষেপ নেয়ার সঙ্কল্প ব্যক্ত করেছেন। তার দেশ আরও উন্নতি করতে পারে বলেও তিনি স্বীকার করেছেন। তিনি শুক্রবার রাতে টেলিভিশনে দেশবাসীর উদ্দেশে ভাষণ দিচ্ছিলেন। এর একদিন আগে দেশে ১০ লাখেরও বেশি লোক জীবনযাত্রার মান উন্নততর করার দাবিতে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে। খবর এএফপি ও বিবিসি অনলাইনের।
রুসেফ বলেন, আমরা ব্রাজিলে আরও ভালভাবে অনেক কিছু করতে পারি। এর আগের দিন প্রতিবাদীরা পরিবহন ভাড়া হ্রাস করা, শিক্ষা ও স্বাস্থ্য খাতে আরও বিনিয়োগ করা এবং দুর্নীতির বিরুদ্ধে কঠোররত পদক্ষেপ নেয়ার দাবি জানান।
রুসেফ তার ভাষণে জানান, তিনি সরকারী পরিবহন ব্যবস্থার উন্নতির জন্য ‘এক নতুন পরিকল্পনা’ তৈরি করবেন এবং তেল থেকে অর্জিত সব রাজস্ব শিক্ষা খাতে ব্যয় করা হবে।
তিনি আরও জানান, জাতীয় স্বাস্থ্য সেবার উন্নতি ঘটাতে বিদেশ থেকে হাজার হাজার চিকিৎসক নিয়োগ করা হবে। এর আগে তিনি প্রতিবাদ-বিক্ষোভ নিয়ে আলোচনা করতে মন্ত্রিসভার এক জরুরী বৈঠকে মিলিত হন।
দেশটির সবচেয়ে বড় সাওপলো শহরে পরিবহন ভাড়া নিয়ে বিক্ষোভের সূচনা হয়, কিন্তু এটি দুর্নীতি ও অন্যান্য ইস্যুকে কেন্দ্র করে দেশজুড়ে সরকারবিরোধী বিক্ষোভে রূপ নেয়।
বৃহস্পতিবার রাতে ১০ লাখেরও বেশি লোক রাস্তায় নেমে আসে। দেশের বিভিন্ন শহরে সহিংস ঘটনা ঘটে এবং এতে দু’ব্যক্তি নিহত এবং কিছু লোক আহত হয়।
প্রতিবাদ বিক্ষোভ শুক্রবারও চলতে থাকে। দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর রিওজেনেরিয়োতে প্রায় ১ হাজার লোক বিক্ষোভ প্রদর্শন করে।
রুসেফ বলেন, সমালোচনা করার অধিকার জনগণের রয়েছে এবং তিনি সেই অধিকার দৃঢ়ভাবে সমর্থন করবেন। ঐক্যের আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, আমি সমগ্র ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট। যারা বিক্ষোভ সমর্থন করে এবং যারা করে না সবার প্রেসিডেন্ট আমি। তিনি শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভের নেতৃবৃন্দ এবং শ্রমিক ও কমিউনিটি নেতাদের সঙ্গে বৈঠকে মিলিত হওয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। কিন্তু তিনি একথাও বলেন, বিক্ষোভ সহিংস রূপ নিলে তিনি নীরব দর্শক হয়ে থাকবেন না। বৃহস্পতিবারের বিক্ষোভের সময় কয়েকটি শহরে লুটপাট ঘটে এবং পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও কয়েকটি সরকারী ভবনে হামলার ঘটনা ঘটে।
তিনি জোর দিয়ে বলেন, যখন লোকজন সরকারী সম্পত্তির ওপর হামলা চালায় এবং আমাদের রাস্তায় রাস্তায় অরাজকতা সৃষ্টি করে, তখন সরকার নীরবে দাঁড়িয়ে থাকতে পারে না।
তিনি বলেন, আমাদের রাজনৈতিক ব্যবস্থাতে প্রাণশক্তি যোগানো প্রয়োজন। এটিকে আরও স্বচ্ছ ও অন্যায় প্রতিরোধ করা প্রয়োজন।
তিনি তার দেশে চলতি বছরের বিশ্বকাপ ফুটবল ক্রীড়ানুষ্ঠানের আয়োজন করাও সমর্থন করেন। তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক ক্রীড়ানুষ্ঠানগুলোতে ব্রাজিলকে সর্বদাই স্বাগত জানানো হয়েছে। তিনি বলেন, আমরা আমাদের অতিথিদের প্রতি সম্মান দেখাব এবং বিশ্বকাপ ক্রীড়ানুষ্ঠানকে সফল করব।
বিশ্বকাপ ও ২০১৬ সালের গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকসের প্রস্তুত বাবদ শত শত কোটি ডলার ব্যয় করা নিয়ে অনেক ব্রাজিলীয়ই ক্ষুব্ধ।
বিশ্ব কাপ ক্রীড়ানুষ্ঠানের ব্যয় নিয়ে উত্থাপিত সমালোচনার জবাবে তিনি বলেন, ক্রীড়ানুষ্ঠানস্থল ব্যবহার করছে এমন কোম্পানিগুলোই বিশ্বকাপের ব্যয় নির্বাহ করবে।
তিনি বলেন, তিনি স্বাস্থ্য ও শিক্ষার মতো অপরিহার্য খাতগুলোর ক্ষতি করে করদাতাদের অর্থ থেকে ওই ব্যয় মেটাতে দেবেন না।