মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৩, ৩ আশ্বিন ১৪২০
গাইবান্ধায় স্কুলের ছাদ ধসে পড়ায় মাঠে পাঠদান
নিজস্ব সংবাদদাতা, গাইবান্ধা, ১৭ সেপ্টেম্বর ॥ পলাশবাড়ী উপজেলার পুটিমারী রেজি. প্রাথমিক বিদ্যালয়ের একাডেমিক ভবন ধসে যাওয়ায় দীর্ঘদিন যাবত মাঠে ক্লাস করছে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা। উপজেলা শিক্ষা অফিসারের উদাসীনতায় ওই বিদ্যালয়ের শিক্ষা কার্যক্রম ভেস্তে যেতে বসেছে।
উপজেলার মনোহরপুর ইউনিয়নের পুটিমারী রেজি. প্রাথমিক বিদ্যালয়টি পরিদর্শনে গেলে প্রধান শিক্ষক নুরুল ইসলাম জানান, ১৯৭৪ সালে বিদ্যালয়টি স্থাপিত হয়ে ১৯৯৫ সালে পুনর্নির্মিত হয়। গত এপ্রিল মাসে বিদ্যালয়ের একামেডিক ভবনে আকস্মিকভাবে ছাদ ধসে পড়ায় শিক্ষার্থীর সংখ্যা কমে এলে প্রধান শিক্ষক গত ৯ মে উপজেলা শিক্ষা অফিসার বরাবর বিদ্যালয়টি পুনর্নির্মাণের জন্য আবেদন করেন। আবেদনের প্রেক্ষিতে উপজেলা প্রকৌশলী এলজিইডি আবু তৈয়ব মোঃ শামসুজ্জামান ১ জুলাই সরেজমিন পরিদর্শন করে ১৫ জুলাই বিদ্যালয়টি পরিত্যক্ত ঘোষণা করে ছাড়পত্র দেন। সেই অবধি রোদ-বৃষ্টি উপেক্ষা করে ছাত্রছাত্রীরা মাঠে ক্লাস করছে। এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নুরুল ইসলাম আরও জানান, গত এপ্রিল মাসে আকস্মিকভাবে বিদ্যালয়টির ছাদ ধসে পড়া শুরু হলে কোমলমতি ছাত্রছাত্রীরা দৌড়-ঝাঁপ শুরু করলে অভিভাবকরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়ে। ইতোমধ্যে ছাদ ধসের কারণে অনেক ছাত্রছাত্রী স্কুলেই আসছে না। যথারীতি শিক্ষকগণ উপস্থিত থাকলেও ভবন না থাকায় ও উপজেলা শিক্ষা অফিসারের উদাসীনতায় ওই বিদ্যালয়ে লেখাপড়ায় বিঘœ ঘটছে। চলতি বর্ষা মৌসুমে আকাশে মেঘ জমলেই ছাত্রছাত্রীদের ছোটাছুটি শুরু হয়। তারা দৌড়ে অনেক সময় আশপাশের বাড়িতে গিয়ে আশ্রয় নেয়। এ ব্যাপারে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার আবু তারেক মোঃ রওনক আকতারের সঙ্গে কথা বললে তিনি জানান, বিদ্যালয় ভবন ধসের বিষয়ে আবেদন করছে কিনা এ মুহূর্তে আমার জানা নেই। তবে ঘটনা সঠিক হলে সেখানে টিনশেড ঘর নির্মাণ করে দেয়া হবে বলে তিনি উল্লেখ করেন।