মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১১, ১৫ আশ্বিন ১৪১৮
নদীর জলে জীবন
আধুনিক যুগে থেকেও প্রাচীন জীবনচর্চা ঘোচাতে পারেনি গাজীপুরের 'সান্ধার' সম্প্রদায়। ভাগ্যবিড়ম্বিত এ সমপ্রদায় বঞ্চিত হচ্ছে সমাজ পরিবর্তনের সুফল থেকে। দুই শতাব্দীর অনিশ্চিত জীবনব্যবস্থার শৃঙ্খল ভেঙ্গে বেরিয়ে আসতে না পেরে যাযাবর এই জনগোষ্ঠী নিত্যদিন চালিয়ে যাচ্ছেন তাদের বেঁচে থাকার সংগ্রাম। গাজীপুরের পুবাইল এলাকা দিয়ে প্রবাহিত চিলাই নদীর কাকালিয়া ফেরিঘাটে নোঙর করে থাকা অর্ধশতাধিক ক্ষুদ্রাকৃতির ভাসমান নৌকায় সমাজের পিছিয়ে পড়া এ সম্প্রদায়ের কয়েক শ' পরিবারের বসবাস মনে করিয়ে দেয় আদিম যুগের মানুষের . . .
ঘুড়ি উৎসব
পৃথিবীর সব দেশেই ঘুড়ি উৎসব হয়। আন্তর্জাতিকভাবেও এ উৎসব পালিত হয়। এমনই এক ঘুড়ি উৎসব গত এপ্রিলে মাসে অনুষ্ঠিত হয়েছে ইউরোপের দেশ ফ্রান্সে। ভৌগোলিক সীমারেখা আর জাতিগত পার্থক্যের কারণে ঘুড়ির ধরন ও আকারে পার্থক্য দেখা যায়। বিভিন্ন জাতিসত্তার নিজস্ব সংস্কৃতি ও মূল্যবোধের চেতনা ঘুড়ির মধ্যে অলঙ্করণের মাধ্যমে ফুটিয়ে তোলে। বিচিত্র ধরনের ঘুড়ির জন্য ফ্রান্সের রয়েছে বিশ্বখ্যাতি। ফ্রান্সে রয়েছে প্রকৃতির অপার সৌন্দর্য। এ সৌন্দর্য উপভোগ করতে পৃথিবীর বিভিন্ন প্রাপ্ত থেকে পর্যটকরা আসেন ফ্রান্সে। ঘুড়ি উৎসব উপলক্ষে . . .
ভাসমান হোটেল!
প্রদীপ সাহা
প্রাকৃতিক দুর্যোগের কারণে পানি বৃদ্ধি পেলেও বিশাল একটি স্থাপনা ডুববে না, ভাসবে স্বাভাবিক স্থাপনার মতো। আর এ স্থাপনায় বাস করতে পারবে ১০ হাজার লোক, থাকবে বেশ কিছু গাছপালা। অবাক হচ্ছেন এ রকম বিস্ময়কর স্থাপনার কথা শুনে? এক গম্বুজবিশিষ্ট এই স্থাপনার নাম 'দ্য আর্ক হোটেল'। সম্প্রতি রাশিয়ার রেমিস্টুডিও নামের এক প্রতিষ্ঠান এই স্থাপনার নকশা করেছে। স্থপতিদের আন্তর্জাতিক সংগঠন 'ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন অব আর্কিটেক্টস'-এর আর্কিটেকচার ফর ডিজাস্টার রিলিফ প্রোগ্রামের সহায়তায় এ নকশা করেছেন রাশিয়ান . . .
যা কিছু বিস্ময়
দ্য গ্রেট মাদারল্যান্ড অব চায়না এটি একটি চিত্রকর্ম। এ চিত্রকর্মে রয়েছে বর্ণিল রঙের বিশাল সম্ভার। এটি পৃথিবীর বৃহত্তম সিল্ক পেইন্টিং। বর্তমানে পেনন্টিংটি শোভা পাচ্ছে হংকং এর লা হোটেলের লবিতে। বুর্জ আল আরব বিশ্বের সর্বোচ্চ হোটেল ভবন বুর্জ আল আরব। ভূমি থেকে এর উচ্চতা ১০৫২ ফুট। এটির নির্মাণ কাজ সমাপ্ত হয়েছিল ১৯৯৯ সালে। এ হোটেলটি হয়েছিল সাগরের ভেতরে মনুষ্য তৈরি দ্বীপে। মূলভূমির সঙ্গে একটি সংযোগ সেতুর মাধ্যমে দ্বীপে অর্থাৎ হোটেলে যাতায়তের ব্যবস্থা করা হয়। পৃথিবীর বৃহত্তম উড়োজাহাজ পৃথিবীর বৃহত্তম . . .
আজব হলেও গুজব নয়
শান্তির জন্য 'যৌন ধর্মঘট'! এক অভিনব ধর্মঘটের মাধ্যমে বিবাদপূর্ণ গ্রামে শান্তি ফিরিয়ে এনেছেন ফিলিপাইনের দক্ষিণাঞ্চলের দ্বীপে অবস্থিত এক গ্রামের নারীরা। মারামারি বন্ধ না করলে যৌন সহবাস না করার হুমকি দিয়ে বিবদমান স্বামীদের সহিংসতা থেকে নিবৃত্ত করেছেন গ্রামের নারীরা। জাতিসংঘের শরণার্থী সংস্থা (ইউএনএইচসিআর) সম্প্রতি এই অদ্ভুত ও সফল প্রতিবাদের খবর জানিয়েছে। জাতিসংঘ শরণার্থী সংস্থার কর্মকর্তা রিকো স্যালসেডো জানান, দক্ষিণাঞ্চলীয় মিনানদো দ্বীপের দাদো গ্রামে কোন আইন-শৃঙ্খলা ছিল না বললেই চলে। কিন্তু . . .