মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
শুক্রবার, ৩০ ডিসেম্বর ২০১১, ১৬ পৌষ ১৪১৮
চলে গেলেন দোয়েল
সংস্কৃতি ডেস্ক জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা দোয়েল আর নেই। বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা ২০ মিনিটে ঢাকার ধানমন্ডির ডিফাম হসপিটালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃতু্যকালে তাঁর বয়স হয়েছিলো ৪৫। দোয়েলের পুরো নাম ইফতে আরা ডালিয়া। ১৯৬৫ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর তিনি বিক্রমপুরে জন্মগ্রহণ করেন। দোয়েলের স্বামী সুব্রত জানান, ২০০৯ সালের শেষ দিক দোয়েলের মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ হলে তাঁকে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এরপর থেকে তাঁর শারীরিক অবস্থার তেমন কোন উন্নতি হয়নি। সর্বশেষ গত এক মাসে চিকিৎসার জন্য তিনটি হাসপাতাল পরিবর্তন . . .
দোয়েলের প্রথম ছবির নায়ক রাজ্জাকের অনুভূতি
একটি স্যাটেলাইট চ্যানেলে দোয়েলের মৃত্যু সংবাদটি প্রথম শুনি। শোনার পর থেকেই ভীষণ খারাপ লাগছে। তাঁর পরিবারের সদস্যরা তাঁকে নিয়ে অনেকদিন যারপরনাই কষ্ট করেছেন। কয়েকদিন আগে সুব্রতর সঙ্গে এফডিসিতে আমার দেখা হলো। দোয়েলের খোঁজ নিতেই আমাকে বললো, 'এখন কিছুটা ভাল। হাত-পা নাড়াচাড়া করে। ইশারায় কথা বলে।' ভেবেছিলাম হয়ত আমাদের মাঝে দোয়েল আবার ফিরে আসবে। কিন্তু না তা আর হলো না। আমাদের সবাইকে ছেড়ে পরপারে চলে গেল দোয়েল। 'চন্দ্রনাথ' ছবিতে আমার নায়িকা ছিল দোয়েল। আমার সঙ্গেই চলচ্চিত্রে তাঁর প্রথম অভিনয়। . . .
শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করলেন পরিচালক নির্মাতা এম এম সরকার
সংস্কৃতি ডেস্ক প্রতিদিনের মতোই বৃহস্পতিবার শুটিং করছিলেন তিনি। শুটিং চলাকালীন সময়েই হঠাৎ হার্টএটাক করেন তিনি। অবস্থা বেগতিক দেখে তাঁকে দ্রম্নত গুলশানস্থ ইউনসাইটেড হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত ডাক্তার তাঁকে বাঁচানোর আপ্রাণ চেষ্টা করলেও শেষ পর্যন্ত হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে মারা গেলেন বরেণ্য চলচ্চিত্র নির্মাতা এম এম সরকার। গতকাল বিকেল ৪টা ৩০ মিনিটে তিনি ইন্তেকাল করেন। তাঁর নতুন ছবি পাগল মানুষ ছবির শুটিং চলাকালীন সময়ে তিনি হার্টএটাক করেন। তাঁর আকস্মিক মৃতু্যতে চলচ্চিত্রাঙ্গনে শোকের ছায়া নেমে . . .