মানুষ মানুষের জন্য
শোক সংবাদ
পুরাতন সংখ্যা
শনিবার, ২৪ ডিসেম্বর ২০১১, ১০ পৌষ ১৪১৮
মেমোগেট ॥ পাকিস্তানে সরকার ও সেনাবাহিনীর শক্তি পরীক্ষা
প্রত্যক্ষ সামরিক হস্তক্ষেপের গুজব
পাকিস্তানে সরকারের বেসামরিক অঙ্গ এবং সেনা নেতৃত্বাধীন নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শক্তি পরীক্ষা অত্যাসন্ন বলে প্রতীয়মান হওয়ায় দেশটির ওপর অশুভ ছোঁয়া পড়েছে। আর সুপ্রীমকোর্টও একেবারে স্পষ্ট করে দিয়েছে যে, তথাকথিত 'মেমোগেট' কেলেঙ্কারি থেকে দূরে সরে যাওয়ার পরিবর্তে কোর্ট সম্পর্কে যৌক্তিক সিদ্ধান্তে উপনীত হতে চায়। খবর ডন অনলাইনের। মেমো বিতর্ক শুরু হওয়ার পর থেকেই কেন্দ্রীয় রাজধানী ইসলামাবাদে উত্তেজনা বিরাজ করছে। কিন্তু সরকার অপসারণের ষড়যন্ত্রের প্রতি ইঙ্গিত করে প্রধানমন্ত্রী ইউসুফ রাজা জিলানির . . .
আস্থা গড়ে তুলতে পাকিস্তান ও ভারত আবার বৈঠকে মিলিত হচ্ছে
ইসলামাবাদে আলোচনা ২৬ ও ২৭ ডিসেম্বর
পাকিস্তান ও ভারত সোমবার ইসলামাবাদে পারমাণবিক ও প্রচলিত অস্ত্রের ৰেত্রে আস্থা গড়ে তোলার পদক্ষেপ নিয়ে বিশেষজ্ঞ পর্যায়ের বৈঠকে মিলিত হবে। দুটি দেশের দ্বিপৰীয় সংলাপ পুনরায় শুরম্ন করার পরিকল্পনার আওতায় ওই বৈঠক সোমবার শুরু হবে। খবর ডন অনলাইনের। প্রচলিত অস্ত্রের ৰেত্রে আস্থা গড়ে তোলার পদৰেপ নিয়ে পঞ্চম দফার বিশেষজ্ঞ পর্যায়ের বৈঠক ২৬ ডিসেম্বর এবং পারমাণবিক অস্ত্রের ৰেত্রে আস্থা গড়ে তোলার পদৰেপ নিয়ে ষষ্ঠ দফার বিশেষজ্ঞ পর্যায়ের বৈঠক ২৭ ডিসেম্বর ইসলামাবাদে অনুষ্ঠিত হবে। পাকিসত্মান পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র . . .
মালিকির আচরণ সাদ্দামের মতো ॥ হাশেমির অভিযোগ
ইরাকের প্রধানমন্ত্রী নূরি আল মালিকিকে সাবেক প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেনের সঙ্গে তুলনা করেছেন দেশটির বর্তমান ভাইস প্রেসিডেন্ট তারিক আল হাশেমি। তিনি বলেন, সাদ্দামের বহু নীতি বর্তমান প্রধানমন্ত্রী অনুসরণ করছেন। হাশেমি আরও বলেন, ইরাকে হঠাৎ করে সহিংসতা মাথাচাড়া দিয়ে ওঠার জন্য প্রধানমন্ত্রী নূরি আল মালিকিকে দায়ী করা উচিত। বৃহস্পতিবার রাজধানী বাগদাদে একের পর এক বোমা হামলায় অন্তত ৭২ জন নিহত এবং প্রায় দুই শতাধিক লোক আহত হয়। হাশেমি বলেছেন, মালিকির কর্তব্য 'দেশপ্রেমিক রাজনীতিবিদদের' পেছনে না লেগে নিরাপত্তা . . .
ভারতীয় পার্লামেন্টে লোকপাল বিল পেশ, আন্নার বহু দাবিই মানা হয়নি
ফের আন্দোলনের হুমকি
যোগ দেয়ার আহ্বান লোকপাল বিল সংসদে পেশ হয়েও সরকার বনাম আন্না হাজারে দ্বৈরথ ঘোচার কোন লক্ষণই দেখা যাচ্ছে না। বরং পূরনো লোকপাল বিল প্রত্যাহার করে কর্মিবর্গ দফতরের প্রতিমন্ত্রী ভি নারায়ণস্বামী বৃহস্পতিবার যে নতুন বিলটি পেশ করলেন তাতে আন্নাদের অনেক দাবিই মানেনি সরকার। শুধু তাই নয়, সকল স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনকে লোকপালের আওতায় রেখে বার্তাও দেয়া হলো আন্না, অরবিন্দ কেজরিওয়াল, কিরণ বেদীদের। স্বাভাবিকভাবেই এই বিলকে আন্না 'অত্যন্ত দুর্বল' আখ্যা দিয়েছেন। ফের অনশনে আন্দোলনের হুমকিও দিয়েছেন। একই সঙ্গে তিনি . . .
হাঙ্গেরিতে জবসের ভাস্কর্য উন্মোচন
হাঙ্গেরির রাজধানী বুদাপেস্টে উন্মোচন করা হয়েছে প্রযুক্তিবিদ ও এ্যাপল ইনকর্পোরেশনের সহপ্রতিষ্ঠাতা স্টিভ জবসের একটি ব্রোঞ্জের ভাস্কর্য। চলতি বছর ৫ অক্টোবর ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে মারা যান স্টিভ জবস। _খবর ওয়েবসাইটের। এনডিটিভির এক খবরে বলা হয়, বুদাপেস্টে সফটওয়ার নকশা তৈরির কোম্পানি 'গ্রাফিসফট' সদর দফতরের সামনে এ ভাস্কর্য স্থাপন করা হয়েছে। মূর্তিটি গড়া হয়েছে কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা গাবোর বোজারের অনুদানে। গ্রাফিসফটের দাবি, বিশ্বে এটাই জবসের প্রথম ভাস্কর্য। প্রায় ২ মিটার লম্বা এবং ২২০ কেজি ওজনের . . .
যুক্তরাষ্ট্রে জনসংখ্যা বৃদ্ধি ৬৫ বছরের মধ্যে সর্বনিম্ন
চলতি বছর যুক্তরাষ্ট্রের জনসংখ্যা বেড়েছে মাত্র ০.৭ শতাংশ হারে, যা গত ৬৫ বছরের মধ্যে সর্বনিম্ন। অর্থনৈতিক মন্দাকেই এর সবচেয়ে বড় কারণ হিসেবে চিহ্নিত করছেন বিশেস্নষকরা। জন্মহার কমে আসার পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্রে অভিবাসনের হারও নেমে এসেছে ২০ বছরের মধ্যে সর্বনিম্ন পযর্ায়ে। যুক্তরাষ্ট্রের সেনসাস বু্যরোর পরিচালক রবার্ট এম. গ্রোভস বুধবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলেন, 'দেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধির সার্বিক হার এখন ১৯৪৫ সালের পর থেকে সর্বনিম্ন পযায়ে।' _খবর ওয়েবসাইটের। সরকারী পরিসংখ্যান অনুযায়ী গত বছরের এপ্রিল . . .
সন্তান প্রসবকালে স্ত্রীর বোরকা সরিয়ে নেয়ায় নার্সকে ঘুষি
স্বামীর ৬ মাসের জেল
ফ্রান্সে সন্তান প্রসবকালে স্ত্রীর বোরকা সরানোর চেষ্টা করেছিল এমন এক নার্সকে ঘুষি মারার দায়ে এক মুসলিমকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। খবর মেইল অনলাইনের। নাসিম মিমুন (২৪) নামের ঐ মুসলিমকে এর আগে ডেলিভারি রুম থেকে বের করে দেয়া হয়। ঐ নার্স তার স্ত্রীকে নিবিড়ভাবে পরীক্ষা করার সময় মিমুন নার্সকে 'ধর্ষণকারী' বলে গালি দেয়। এরপর সে একটি জানালা দিয়ে নার্সকে তার স্ত্রীর বোরকা সরাতে দেখে। তখন তার স্ত্রী সনত্মান প্রসবের প্রস্তুতি নিচ্ছিল। সে তারাবদ্ধ দরজা ভেঙ্গে কৰে ঢুকে মহিলার মুখে আঘাত করে। সে পুরো . . .
নীতিতে পরিবর্তন আনছে ফেসবুক
ফেসবুক কি? এই প্রশ্ন এখন আর শোনা যায় না। ইন্টারনেট সামাজিক যোগাযোগের এই ওয়েবসাইট এখন মিশে গেছে মানুষের প্রাত্যহিক জীবনের সঙ্গে। ভালবাসার আদান-প্রদান কিংবা আন্দোলনের ডাক_ সবক্ষেত্রে ফেসবুকই সহায়। ফেসবুক ব্যবহারকারীদের মাথাব্যথার অনত্ম নেই। ছলে-বলে-কৌশলে ফেসবুক আবার ভোক্তার গোপনীয় বিষয়াদি অন্যের হাতে তুলে দিচ্ছে না তো? বিশেষ করে ইউরোপ, আমেরিকার নাগরিকরা নিজেদের পছন্দ-অপছন্দ, ব্যক্তিগত অনেক কিছু নিজেদের মধ্যে কিংবা বন্ধুবান্ধবের একটি নির্দিষ্ট পরিমণ্ডলের মধ্যে রাখতে পছন্দ করেন। এসব দেশে তথ্য সুরক্ষা . . .